জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক : স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম বলেছেন, অন্যান্যবারের মতো এবারও কঠোর নিরাপত্তার মধ্যে এমবিবিএস ভর্তি পরীক্ষা নেওয়া হবে।

আগামী ৫ অক্টোবর দেশের ১৯ কেন্দ্রে এ পরীক্ষা হবে।

আসন্ন এমবিবিএস ভর্তি পরীক্ষা সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করার লক্ষ্যে বুধবার সচিবালয়ে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সঙ্গে বৈঠককালে তিনি এসব কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, পরীক্ষার দিন সকাল সাড়ে ৯টার পর পরীক্ষাকেন্দ্রে শিক্ষার্থীরা প্রবেশ করতে পারবে না। সাড়ে ৯টার আগেই প্রবেশ করতে হবে।

তিনি বলেন, চিকিৎসা শিক্ষার মান এগিয়ে নিতে কোনো আপোশ করা হবে না। প্রকৃত মেধাবীরাই মেডিক্যাল কলেজগুলোতে ভর্তির সুযোগ পাবেন। এখন থেকে পরীক্ষা শেষ না হওয়া পর্যন্ত সর্বোচ্চ কঠোর নিরাপত্তা নিশ্চিত করা হবে।

আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী ও গোয়েন্দা বিভাগকে সতর্ক থাকার নির্দেশ দেন মন্ত্রী।

মোহাম্মদ নাসিম বলেন, ১ সেপ্টেম্বর থেকে দেশের সকল মেডিক্যাল ভর্তি কোচিং সেন্টার বন্ধ হলেও পরীক্ষার দিন পর্যন্ত কোচিং সেন্টারগুলোর সংলগ্ন এলাকায় নজরদারি বাড়াতে হবে। যাতে সেগুলোকে কেন্দ্র করে কোনো অপতৎপরতার সুযোগ না থাকে। প্রশ্নপত্র তৈরি, ছাপানো, বিতরণসহ সকল পর্যায়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে ডিজিটাল ট্র্যাকিংয়ের ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে, যেন কোনোভাবেই এই প্রক্রিয়াগুলোর মধ্যে প্রশ্নপত্র ফাঁসের সুযোগ না হয়।

তিনি বলেন, এবারও প্রশ্নপত্র ফাঁসের কোনো সুযোগ নেই। তারপরও পরীক্ষাকে কেন্দ্র করে ভুয়া প্রশ্নপত্র বাণিজ্য বা গুজব প্রতিরোধে সকলকে তৎপর থাকতে হবে। বিশেষ করে ভুয়া অনলাইন পোর্টাল ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের ওপর মনিটরিং জোরদার করতে হবে।

স্বাস্থ্যমন্ত্রীর সভাপতিত্বে সভায় স্বাস্থ্য প্রতিমন্ত্রী জাহিদ মালেক, স্বাস্থ্য শিক্ষা ও পরিবার কল্যাণ বিভাগের সচিব জি এম সালেহ উদ্দিন, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদ, অধ্যাপক ডা. মাহমুদ হাসান, বিএমডিসির পরিচালক অধ্যাপক ডা. সহিদুল্লা, ওভারসাইট কমিটির সদস্য কলামিস্ট সাংবাদিক সৈয়দ আবুল মকসুদ, যুগান্তরের ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক সাইফুল আলম, প্রথম আলোর যুগ্ম সম্পাদক আবদুল কাইয়ুম, গাজী মিডিয়ার চিফ এডিটর ইশতিয়াক রেজাসহ মন্ত্রণালয়, স্বাস্থ্য অধিদপ্তর, আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ও গোয়েন্দা সংস্থার ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাগণ উপস্থিত ছিলেন।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here